শরীয়তপুরে করোনা ভাইরাস সন্দেহ নারীর মৃত্যু , ৪ পরিবারের ৭ জন হোমকোয়ারেন্টাইনে

শনিবার, ০৪ এপ্রিল ২০২০ | ৬:০০ অপরাহ্ণ | 19 বার

শরীয়তপুরে করোনা ভাইরাস সন্দেহ নারীর মৃত্যু , ৪ পরিবারের ৭ জন হোমকোয়ারেন্টাইনে

শরীয়তপুরে সদর হাসপাতালে সর্দি ও জ্বরে আক্রান্ত ২৫ বছর বয়সী এক মহিলার মৃত্যু হয়েছে। তার বাড়ি সদর উপজেলার চন্দ্রপুরের রায়পুর।

জানা যায়, শনিবার ৪ মার্চ সকাল সাড়ে ৯টায় ওই রোগীকে তার আত্মীয়-স্বজন শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। ভর্তি হয়ে মহিলা ওয়ার্ডে ছিটে যেতে না যেতেই ওই মহিলার মৃত্যু হয়। এমতাবস্থায় করোনা পরীক্ষার ভয়ে দ্রুত ওই রোগীর আত্মীয়-স্বজন রোগীকে নিয়ে বাড়ি চলে যায়।

সর্দি ও জ্বরে আক্রান্ত ওই মহিলার মৃত্যুর সংবাদ প্রশাসনের কানে পৌঁছলে জেলা প্রশাসক কাজী আবু তাহের-এর নির্দেশক্রমে সদর উপজেলা ইউএনও মো: মাহাবুর রহমান শেখ তার সঙ্গে সদর উপজেলা স্বাস্থ‍্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ডা. সোবহান, পালং মডেল থানা ওসি আসলামউদ্দিন ও সদর ইসলামিক ফাউন্ডেশনের জানাজা কমিটিসহ একটি টিম নিয়ে ওই মৃত মহিলার বাড়ি চলে যায়, ওই মহিলা করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে কি-না তা জানতে।

পরে ওখানে তারা সার্বিক পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে ৪টি পরিবারের ৭ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনের আওতায় এনে মৃত মহিলার করোনা ভাইরাস পরীক্ষা নমুনা সংগ্রহ করে দাফন-কাফন সম্পন্ন করেন।

এ বিষয়ে সদর ইউএনও মো: মাহাবুর রহমান শেখ জানান, আমরা ডিসি স‍্যারের নির্দেশক্রমে সদর উপজেলা স্বাস্থ‍্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ডা. সোবহান, পালং মডেল থানা ওসি আসলামউদ্দিন ও সদর ইসলামিক ফাউন্ডেশনের জানাজা কমিটিসহ একটি টিম নিয়ে ওই মৃত মহিলার বাড়ি আসি এবং সার্বিক পরিস্থিতি দেখে ৪টি পরিবারের ৭ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনের আওতায় এনেছি এবং দাফন-কাফন সম্পন্ন করেছি। করোনা নমূনা নিয়ে ঢাকায় পরীক্ষার জন‍্য পাঠানোর ব‍্যবস্থা করেছি।

সদর হাসপাতালের আরএমও ডা. সুমন পোদ্দার জানান যে, ওই মহিলা জ্বর ও সর্দি নিয়ে শনিবার সকাল ৯টার দিকে ভর্তি হয়। ভর্তি করে উপরে যাওয়ার পরপরই মৃত্যুবরণ করে। পরে তারা হাসপাতাল কতৃপক্ষকে না জানিয়ে লাশ নিয়ে বাড়ি চলে যায়। তিনি আরও জানান, প্রশাসন খবর পেয়ে মৃত মহিলার বাড়ি গিয়ে সার্বিক পরিস্থিতি দেখে ব‍্যবস্থা নিবে।

স্কুল ছাত্রকে গুলি করে হত্যা করলো ছাত্রলীগ সভাপতি

Design & Developed by: Ifad Technology