ভারতে সংক্রমিত ২ লাখ ৫০ হাজার ছাড়াল, চীনকে

সোমবার, ০৮ জুন ২০২০ | ৯:২৮ পূর্বাহ্ণ | 55 বার

ভারতে সংক্রমিত ২ লাখ ৫০ হাজার ছাড়াল, চীনকে

আশঙ্কা আগেই করা হয়েছিল। দু’মাসের বেশি সময় ধরে লকডাউন চলার পরে হঠাৎ সরকার কড়াকড়ি শিথিল করতেই ভারতে করোনা পরিস্থিতি দ্রুত বদলাতে শুরু করেছে। উদ্বেগজনকভাবে ছড়াচ্ছে ভাইরাসের সংক্রমণ। ভারতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা এর মধ্যেই আড়াই লাখ ছাড়িয়ে গিয়েছে। বিভিন্ন রাজ্য থেকে প্রাপ্ত পরিসংখ্যানের ভিত্তিতে রবিবার রাতে এই তথ্য জানিয়েছে একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম।

আক্রান্তের সংখ্যার নিরিখে এর মধ্যেই চীনকে টপকে গেছে ভারতীয় রাজ্য মহারাষ্ট্র। সেখানকার পরিস্থিতি ক্রমশ খারাপের দিকে যাচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় সে রাজ্যে আরো ৩,০০৭ জনের শরীরে করোনার উপস্থিতি শনাক্ত করা গেছে। ফলে মোট মোট সংক্রমিত ব্যক্তির সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮৫ হাজার ৯৭৫ জন। এর মধ্যে কমপক্ষে তিন হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। উল্লেখ্য, চীনে সরকারিভাবে এখন পর্যন্ত ৮৩,০৩৬ জন করোনা রোগীর সন্ধান পাওয়া গেছে।

রাজ্যগুলোর মধ্যে মহারাষ্ট্রের পরে তামিলনাড়ুতে আক্রান্তের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। দক্ষিণের এই রাজ্যে রোববার পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ১ হাজার ৫১৫ জনের শরীরে এই মারণ ভাইরাস থাবা বসিয়েছে। সেইসঙ্গে ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। ফলে তামিলভূমে কোভিডে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ২৬৯ জন। আর সংক্রমিত ব্যক্তির সংখ্যা ৩১ হাজার ৬৬৭ জন।

লকডাউন শিথিল হওয়ার ফলে জনজীবন ক্রমশ স্বাভাবিক হতে শুরু করায় দিল্লিতেও লাগাতার বেড়ে চলেছে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা। ভারতের রাজধানীতে এখন পর্যন্ত মোট ২৭,৬৫৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন। মৃত ৭৬১ জন। এ দিকে গুজরাতে এখন পর্যন্ত ১৯ হাজার ৫৯২ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ২১৯ জনের।

উত্তরপ্রদেশে এক দিনে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ নতুন রোগীর সন্ধান পাওয়া গেছে রোববার। এ দিন আরো ৪৩৩ জন নতুন রোগীর সন্ধান পাওয়ার পরে রাজ্যে মোট সংখ্যাটা দাঁড়িয়েছে ১০ হাজার ৫৩৬ জন।

আক্রান্তের সংখ্যায় প্রতিদিনই পুরোনো রেকর্ড ছাপিয়ে যাচ্ছে পশ্চিমবঙ্গ। রোববার সন্ধ্যায় নবান্ন থেকে প্রকাশিত বুলেটিন অনুসারে, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনায় আক্রান্ত হলেন ৪৪৯ জন। এক দিনে আক্রান্তের নিরিখে যা সর্বোচ্চ। ফলে রাজ্যে মোট করোনা-আক্রান্তের সংখ্যা ৮ হাজারের গণ্ডি টপকে গেল। রাজ্যে এ পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ১৮৭ জন। এভাবে চলতে থাকলে রাজ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যাটা হয়তো সপ্তাহখানেকের মাথাতেই ১০ হাজারের গণ্ডি টপকে যাবে বলে আশঙ্কা স্বাস্থ্য ভবনের কর্তাদের।

এ দিকে, রোববার মধ্যরাত পর্যন্ত বিশ্বের ২১৩টি দেশ ও অঞ্চলে মোট কোভিড আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে প্রায় ৭০ লাখ ৬৪ হাজার জন। এর মধ্যে অ্যাকটিভ আক্রান্তের সংখ্যা ৩২ লক্ষ ৮ হাজার ৩৭২ জন। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৩৪ লাখ ৫১ হাজারের কাছাকাছি। করোনার প্রকোপে মৃত ৪ লাখ ৪ হাজার ৫৫৭ জন।

সূত্র : এই সময়

সাবেক সেনা কর্মকর্তাকে গুলি: বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ২১ সদস্য প্রত্যাহার

Design & Developed by: Ifad Technology